ইসলাম ধর্ম গ্রহন করলেন কুমিল্লার অনিক দাস

866

কুমিল্লার মনোহরগঞ্জ উপজেলার সরসপুর গ্রামের হিন্দু পাড়ার একটি হিন্দু ছেলে মুসলমান হয়েছে। সনাতন ধর্ম ছেড়ে ইসলাম ধর্ম গ্রহণ করেছেন অনিক চন্দ্র দাস। বর্তমানে তার নাম মো. আনাস।

নোটারী পাবলিক বরাবরে সম্পাদিত এফিডেভিট মূলে প্রীতি কর্মকার মুসলিম ধর্ম গ্রহণ করেন। এ সময় মো. আনাস নিজের নাম হিসেবে পছন্দ করেন।

কুমিল্লার মনোহরগঞ্জ উপজেলার সরসপুর গ্রামের হিন্দু পাড়ার একটি হিন্দু ছেলে মুসলমান হয়েছে। সনাতন ধর্ম ছেড়ে ইসলাম ধর্ম গ্রহণ করেছেন অনিক চন্দ্র দাস। বর্তমানে তার নাম মো. আনাস। নোটারী পাবলিক বরাবরে সম্পাদিত এফিডেভিট মূলে প্রীতি কর্মকার মুসলিম ধর্ম গ্রহণ করেন। এ সময় মো. আনাস নিজের নাম হিসেবে পছন্দ করেন।বরিশালের বাকেরগঞ্জ উপজেলার গারুড়িয়া ইউনিয়নের ৬নং ওয়ার্ড বালিগ্রামে তরুন ঘোষ ও তার স্ত্রী স্বর্ণা ঘোষ হিন্দু ধর্ম ত্যাগ করে মুসলমান হয়েছেন।

১৯ জুলাই ২০২০ ইং নোটারি করে ইসলাম ধর্ম গ্রহণ করেন তারা। এরপর তাদের পূর্বের নাম বাদ দিয়ে ইসলামিক নাম দেয়া হয়। তরুণের নাম দেওয়া হয় আব্দুল্লাহ এবং স্বর্ণার নাম দেওয়া হয় ফাতিমা।

তরুণের বাবার কাছে তার ছেলের ইসলাম ধর্ম গ্রহণের বিষয় জানতে চাইলে তিনি জানান তার ছেলে যদি ধর্ম ত্যাগ করে ভাল থাকে তাহলে তার কোন আপত্তি নাই।

স্থানীয় মুসলিম সম্প্রদায় এই নওমুসলিম দম্পতির বসবাসের জন্য একটি বাড়ীর ব্যাবস্থা করে দেন। এবং ইসলামিক শিক্ষা নেয়ার জন্য ওই এলাকার মসজিদের ইমাম দায়িত্ব নেন।

ইমাম সাহেব জানান তাদের ইসলামের মৌলিক শিক্ষা দিতে যতদিন লাগবে তিনি তালিম দিবেন। এবং বিভিন্ন সূত্রের মাধ্যমে জানা যায় যে ইসলাম ধর্ম গ্রহণে কোনো প্রকার চাপ তাদের দেয়া হয়নি তারা সেচ্ছায় ইসলাম গ্রহণ করেছেন।

তারা বৃহত্তর মুসলিম জনগোষ্ঠীর কাছে দোয়া চান যাহাতে ইমান নিয়ে বাকি জীবন কাটাতে হিন্দু ধর্ম থেকে মুসলিম ধর্মে ধর্মান্তর এমন ঘটনা অহরহ আমাদের সোশ্যাল মিডিয়ার কল্যানে আমাদের চোখে ভাসে। বাস্তবে আমরা যা দেখি সবই কি সত্য? নাকি এই মাঝে লোকানে আছে অন্য কোন রহস্য??
প্রতিনিয়ত আমরা ফেইসবুকে দেখি ছেলেমেয়েরা হিন্দু ধর্ম ত্যাগ করে ইসলাম ধর্মে আসছে কিন্তু বেশিরভাগ মেয়েই লাভ জিহাদের স্বীকার। প্রেমের লোভে নয়তো কোন অর্থের লোভে হিন্দু থেকে মুসলিম হচ্ছে। বাংলাদেশি নায়িকা অপু বিশ্বাস যেভাবে সিনেমাতে চান্স পাওয়ার লোভে পড়ে সাকিব খানের লাভ জিহাদের ফাঁদে পড়ে হিন্দু থেকে মুসলিম হয়েছিল ঠিক তেমনি বাংলাদেশ তথা বিশ্বের প্রতিটি মেয়ে লাভ জিহাদের ফাঁদে পড়ে হিন্দু থেকে মুসলিম হচ্ছে।
অপরদিকে ভারতে মুসলিম থেকে হিন্দু হচ্ছে সেই একই লাভ জিহাদের ফাঁদে পড়ে। সেখানে কেউ মুসলিম থেকে হিন্দুধর্ম গ্রহন করলে তাকে প্রাথমিকভাবে সরকারি আর্থিক সুযোগ সুবিধা থেকে শুরু করে অনেক সুবিধা প্রদান করা হয়।

সাম্প্রতিক ভাইরাল হয় বাংলাদেশে সীমা রানী সরকার নামে এক মেয়ে হিন্দু ধর্ম ছেড়ে ইসলাম ধর্ম গ্রহন করে। কিন্ত এলাকার ঠিকানা বিস্তারিত ইনভেস্টিগেশন করে জানা যায় মেয়েটি এক মুসলিম ছেলের প্রেমের ফাঁদে পড়ে হিন্দু ধর্ম ছেড়ে ইসলাম ধর্ম গ্রহন করেন। এখানে ইসলামের প্রতি ভালোলাগা বা ভালোবাসা কিছুই ছিলনা। এমনকি ধর্ম ত্যাগ করার পর ছেলেটি মেয়েটিকে বিয়ে পর্যন্ত করেনি। কারন ছেলের পরিবার মেয়েটিকে মানতে রাজী নন। পরবর্তীতে এই সীমা রানী সরকার যজ্ঞ করে নারিকেল ভেঙ্গে পাশ্চচিত্র করে হিন্দু ধর্মে ফিরে আসেন।